বিপ্লবের আলো জ্বেলে দাও দুনিয়াময় …

(llcobangla.org)

সামানের দিকে থাকাও, পিছনে নয়। মেকি মার্ক্সবাদীদেরকে জেটিয়ে বিদেয় কর। লিডিং লাইট কমিঊনিজম হলো প্রাগ্রসর সাম্যবাদ। সামগ্রীক ভাবে বিজয় অর্জনের জন্য বিশ্বময় গন সংগ্রামের মাধ্যমে বৈজ্ঞানিক পন্থায় আমরাই বিপ্লবের পরবর্তী স্তর বিনির্মান করব।  আদর্শ ই আমাদের মূল অস্ত্র। সত্যিকার অর্থে যাদের প্রয়োজন তাঁদের হাতে ই এই অস্ত্র আমারা তুলে দিতে চাই। এটাই উত্তম সময় বিপ্লবী বিজ্ঞানের সর্বোচ্চ স্তরকে উচ্চে তুলে ধরা ও এগিয়ে নেয়া ।

এখন দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে থামাশা দেখার সময় নয় । দুনিয়ার অধিকাংশ মানুষ আজ বিপন্ন । মানুষের আজ নেতা চাই। আমরা অবশ্যই মানুষের সেবা করব। আমরা সবাই সৈনিক। আমরা আত্মরক্ষার লাড়াইয়ে নিয়োজিত আছি। আমরা অগণিত, আমাদের লাইন অনেক লম্বা। আমারা আমাদের নিজেদের অভিযাত্রায় – লং মার্চে নিয়োজিত আছি। আমাদের জীবনে এর চেয়ে উত্তম কাজ আর নেই, হতে পারে না । আপনি যদি দুনিয়ার বুকে ন্যায় বিচার দেখতে চান, তবে আপনাকে ও এগিয়ে আসতে হবে, সংগঠিত হতে হবে। নিজের বিরুদ্বে লাড়াই, সংশোধনবাদের বিরুদ্বে লড়াই করতে হবে। সত্যিকার কমিউনিস্ট হতে – একজন লিডিং লাইট নেতৃত্ব দেন – কাজ করেন- সংগঠিত করেন এবং ত্যাগের পথে এগিয়ে যান।

ঐক্যের ভিত্তি –

 ১. আমাদের লক্ষ্য হলো লিডিং লাইট  কমিউনিজম । সকল নিপিড়নের অবসান করা। কোন শোষণ থাকবে না । থাকবে না কোন ধনী – গরীব। থাকবে না কোন জাতিগত, ধর্মগত, গৌস্টীগত, লিঙ্গগত বৈষম্য । থাকবেনা তরুন, প্রবীণের অপব্যবহার, থাকবেনা নারী পুরুষের উপর কোন নিপীড়ন। ধ্বংস করবে না আমাদের প্রিয় পৃথীবীকে। আমারা লড়াই করছি – একটি সুন্দর, সুসম ও ঠেকসই সামাজিক ব্যবস্থা কায়েম করার জন্য। সত্যকার স্বাধীনতার জন্য। সকল প্রকার উপনিবেশ বাদের উচ্ছেদের জন্য। লিডিং লাইট কমিউনিজমের জন্য।

২. বিপ্লবই একমাত্র আমাদের জন্য সমাধান । খুবই খারাপ জিনিস হলো সংশোধনবাদ। পুরাতন ব্যবস্থা বা ক্ষমতা কাঠামোর, প্রতিস্টান সমূহের বা রাষ্ট্রের সংশোধন  করে আমাদের কোন লাভ নেই। আমাদের সত্যকার লাভ হবে তখনই যখন আমরা একটি বিজ্ঞান ভিত্তিক নেতৃত্বের আওতায় দুনিয়ার তাবত গরীব মানুষের স্বার্থে একটি নতুন ক্ষমতা কাঠামো গড়ে তুলতে পারব। কায়েম করতে পারব লিডিং লাইট কমিউনিজম । 

৩. আজকের দুনিয়ায় প্রধান সংঘাত হলো- গরীব মানুষ আর ধনীক লুটেরাদের মাঝে, বিশ্ব ধনিক শ্রেণী আর বিশ্ব গরীব শ্রেনীর মাঝে, শোষক দেশসমূহ আর শোষিত দেশসমূহের মাঝে, প্রথম বিশ্ব বয়াম তৃতীয় বিশ্ব। মানুষের শৃংখল মুক্তির প্রথম পদক্ষেপ হলো ধনিক শ্রেনী ও সাম্রাজ্যবাদের শৃংখল ভেঙ্গে ফেলা। লিডিং লাইটের নেতৃত্বে বিশ্ব গন লড়াইয়ের কৌশল প্রয়োগ করে সকল প্রকার নিপিড়নের পরিসমাপ্তি ঘটাতে চাই। এখন বিশ্ব গ্রাম – বিশ্ব বস্তি ঘিরে আছে বিশ্ব শহর ও নগরকে।

৪. আমরা বুঝতে পারছি যে, বিশ্ব দরিদ্র, প্রলেতারিয়েত এবং তাঁদের সমর্থক গন প্রধানত প্রলেতারিয়ান দেশে বসবাস করেন। বর্জোয়া দেশ গুলো শ্রনী শ্ত্রুর দ্বারা পূর্ণ হয়ে আছে – উরা বুর্জোয়াদের দ্বারা তৃতীয় বিশ্ব শোষনের ও নিপিড়নের উপকার ভোগী। উরা প্রলেতারিয়েত শ্রেনীর শ্রম-ঘাম ও রক্ত শোষণের সহযোগী। শোষক শ্রেণী দুনিয়ার মানুষের  শত্রু -উরা অভিশপ্ত। বুর্জোয়া বিশ্বের শ্রমিকরা ও শোষকে পরিনত হয়েছে ; তাঁরা এখন বিশ্ব মানবতার শত্রু। তাঁরা এখন আর প্রলেতারিয়েত নয়। তাঁরা এখন বিশ্ব বুর্জোয়াদের কাতারে দাঁড়িয়ে আছে, তাঁরা ও এখন বিশ্ব ধনিক শ্রেনীর মানুষ।

৫. আমরা বিশ্ব সমাজতান্ত্রিক সমাজ বিনির্মানের ইতিহাসকে ধারন করি। আমরা সৌভিয়েত ইউনিউনের দ্বিতীয় বিশ্ব যুদ্ব পরবর্তী অবস্থা ও ১৯৫০ সালের মাঝামাঝি সময়কে সমর্থন করি। আমরা চীন বিপ্লবের পরবর্তীতে ১৯৬০ এবং ১৯৭০ সালের পরিস্থিতিকে বিকৃত সমাজতন্ত্র মনে করছি। তখন পুঁজিবাদ পুনঃ প্রতিস্টা ও কমিউনিস্ট পার্টির  ভেতরে বুর্জোয়া শ্রেনীর উত্থান দেখেছি।

৬. আমরা নিরন্থন বিপ্লব করার প্রক্রিয়াকে ও ধারন করি। কথাও সমাজতন্ত্র একবার ঘোষণা করলেই বিপ্লব শেষ হয়ে যায় না । প্রতিবিপ্লবী শক্তি সকল সময়ই প্রতিক্রিয়াশীল কার্যক্রম চালাতে পারেন। বিপ্লবী সংঠনের ভেতরে ও প্রতিবিপ্লবী শক্তির জন্ম হতে পারে। যতক্ষন পর্যন্ত সকল প্রকার শোষন, নিপীড়ন ও ভয় ভীতি দূরীভূত না হবে – ততক্ষন পর্যন্ত বিপ্লবী কার্যক্রম চলতেই থাকবে ।

৭. বিপ্লব হলো একটি বিজ্ঞান সম্মত প্রকল্প – যা প্রতিটি সত্যিকার বিপ্লবের পর পুর্ণতা পায়। লিডিং লাইট কেবল মাত্র অতীতের পুনরাবৃত্তি করতে চায় না, বরং তা আরো আরো সামনে এগিয়ে নিতে চায়। আমরা বিপ্লবী বিজ্ঞানী হিসাবে বিগত দিন থেকে শিক্ষা নেব, তবে আগের যেকন বিপ্লবের তুলনায় আমরা আরো অনেক ভালো কিছু কাজ করব। আমরা এমন এক বিপ্লব বিশ্বকে উপহার দেব যা এর আগে কেঊ করতে পারেনি। লিডিং লাইটের বিপ্লবী সাফল্য বিশ্ব মানবতাকে নতুন এক উন্নয়নের মাত্রায় নিয়ে যাবে।

৮. লিডিং লাইট কমিউনিস্ট অর্গানাইজেশনকে  সফলতার দিকে নিয়ে যাওয়ার জন্য আমাদের দক্ষ সংগঠন ও নেতৃত্ব আছে। আমাদের আছে দলীয় শৃংখলা, সাংগটনিক কাঠামো , অনুগত্য ও গতিশীল নেতৃত্ব – যা আমাদের সাফল্য এনে দিবে ই। বিপ্লবের জন্য আমরা সবই করব। আমাদের সময়, আমাদের সম্পদ, আমাদের জীবন সব কিছু। এটা শুধু কথার কথা নয় – সত্যিকার বিপ্লব হলো সামনে চলা এবং এগিয়ে যাওয়া ।

৯. ঐক্যবদ্ব হও ! এর অর্থ হলো লিডীং লাইট কমিউনিজমকে তুলে ধরা। যা বর্তমান দুনিয়ার সবচেয়ে প্রাগ্রসর বিপ্লবী বিজ্ঞান। সত্যিকারের সকল বিপ্লবীরা এখন লিডিং লাইট কমিউনিস্ট।

লিডিং লাইট দীর্ঘ জিবি হোক ! লিডিং লাইট অনুসরন করুন ! লীডিং লাইট হয়ে উঠোন ! আমাদের সূর্য উঠছে। আমাদের দিন আসছে। একে এম শিহাব ।

Advertisements